ঘাতক পিতা ফায়জুলকে কারাগারে প্রেরণ ॥ লাখাইয়ে শিশু সন্তানকে হত্যার ঘটনায় স্বামীর বিরুদ্ধে স্ত্রীর মামলা
তারিখ: ১২-জুলাই-২০১৮
লাখাই প্রতিনিধি ॥

লাখাই উপজেলায় ২ মাস বয়সী ফুটফুটে শিশু সন্তানকে আছাড় দিয়ে হত্যার ঘটনায় ঘাতক পিতা ফায়জুল মিয়ার বিরুদ্ধে হত্যা মামলা দায়ের হয়েছে। গতকাল বুধবার বিকালে লাখাই থানায় ফায়জুলকে আসামী করে এই মামলা করেন তার স্ত্রী ফুল জাহান। একইদিন বিকালে পুলিশ তাকে আদালতে প্রেরণ করলে আদালত সন্তান হত্যাকতারী ফায়জুলকে জেলহাজতে প্রেরণের নির্দেশ দেন। এ ব্যাপারে লাখাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) অজয় চন্দ্র দেব জানান, ফায়জুল প্রাথমিকভাবে হত্যাকান্ডের ঘটনা পুলিশের কাছে স্বীকার করেছে। এছাড়া এই ঘটনায় সে অনুতপ্ত হয়ে পুলিশকে জানায়, পারিবারিক অশান্তির ঘটনাকে কেন্দ্র করে সে রাগের মাথায় এই ঘটনা ঘটিয়েছে। ওসি আরো জানান, তার বিরুদ্ধে আদালতে ৫ দিনের রিমান্ড আবেদন করা হবে। মামলার তদন্ত করছেন লাখাই থানার উপ পুলিশ পরিদর্শক (এসআই) হুমায়ুন কবীর। এদিকে বুধবার বিকেলে শিশু ইকরা মনিকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে। উল্লেখ্য গত মঙ্গলবার বিকালে লাখাই উপজেলার মানপুর গ্রামের ফায়জুল মাতাল হয়ে ঘরে ফিরে তার স্ত্রী ফুল জাহান (৩৩), মেয়ে মারিয়া আক্তার (৯) এবং ২ মাস বয়সী ইকরা মনিকে এলোপাথারি আঘাত করতে শুরু করে। এক পর্যায়ে ইকরা মনিকে সে উপরে তুলে আছাড় দিয়ে ফেলে দেয়। স্থানীয় লোকজন আহত ৩ জনকে হবিগঞ্জ আধুনিক জেলা সদর হাসপাতালে এনে ভর্তি করেন। পরবর্তীতে ইকরামনিকে মৃত ঘোষণা করে কর্তব্যরত চিকিৎসক। ঘটনার দিন রাতেই ঘাতক পিতা ফায়জুলকে আটক করে পুলিশ।





প্রথম পাতা