জাতীয় প্রাক্তন সৈনিক পার্টি হবিগঞ্জ জেলা শাখার কর্মীসভা অনুষ্ঠিত
তারিখ: ১৬-এপ্রিল-২০১৮
প্রেস বিজ্ঞপ্তি ॥

জাতীয় প্রাক্তন সৈনিক পার্টি হবিগঞ্জ জেলা শাখার কর্মীসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গত শনিবার বিকালে হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবে এই সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন হবিগঞ্জ-৩ আসনে জাতীয় পার্টির সম্ভাব্য প্রার্থী এবং জাতীয় কৃষক পার্টির কেন্দ্রীয় কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান ও হবিগঞ্জ জেলা জাতীয় পার্টির যুগ্ম আহ্বায়ক প্রকৌশলী এম এ মুমিন চৌধুরী বুলবুল। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা জাতীয় পার্টির যুগ্ম আহ্বায়ক এডভোকেট আজমান আলী, এডভোকেট জাবেদ আলী, সদর উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি প্রফেসর আবিদুর রহমান, জাহাঙ্গীর আলম চৌধুরী, জাতীয় যুব সংহতির কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কাজল আহমেদ, জাতীয় যুব সংহতির কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট শিবলী খায়ের, জাতীয় স্বেচ্ছাসেবক পার্টির কেন্দ্রীয় সদস্য তাজ উদ্দিন আহমেদ বাবুল, জেলা কৃষক পার্টির সহ সভাপতি হাজী ফরিদ উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক জালাল উদ্দিন আহমেদ। সার্জেন্ট (অব) আলহাজ্ব সিরাজ উদ্দিনের সভাপতিত্বে ও জেলা প্রাক্তন সৈনিক পার্টির সাধারণ সম্পাদক ওয়ারেন্ট অফিসার (অব) আবু তালেব এর পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন ওয়ারেন্ট অফিসার (অব) আব্দুল করিম, হাজী আব্দুস সালাম, সার্জেন্ট (অব) কবির মিয়া, প্রাক্তন সৈনিক পার্টি নেতা ডাঃ আব্দুল জলিল, ডাঃ আব্দুল ওয়াহাব, শামিম আহমেদ, বশির আহমেদ, মাসুদ আহমেদ, আব্দুস সহিদ, আবেদ খান, আলাউদ্দিন, আব্দুর নুর, আব্দুল হাই, আব্দুল খালক, জালাল উদ্দিন, মর্তুজ আলী, নুর মিয়া, রঙ্গু মিয়া, মশ্বব আলী, তৌহিদুল ইসলাম, এমরান মিয়া, রাজু মিয়া, আবু সুফিয়ান, আপন মিয়া, বদর উদ্দিন, সায়েদ মিয়া, আনোয়ার মিয়া প্রমুখ। সভায় প্রকৌশলী এম এ মুমিন চৌধুরী বুলবুল বলেন- পল্লীবন্ধু এরশাদ সেনা বাহিনীকে ঐক্যবদ্ধ করে দেশের উন্নয়নে নিয়োগ করেছেন। তাই এরশাদ সরকারের আমলে দেশে ব্যাপক উন্নয়ন হয়েছিল। সেই সময় ছিল স্বর্ণযুগ। দেশবাসী আজও এরশাদ সরকারের উন্নয়নের কথা ভুলে যায়নি। তিনি আগামী সংসদ নির্বাচনে জাতীয় পার্টির প্রার্থী হিসেবে সকলের সহযোগীতা কামনা করেন।





প্রথম পাতা